Home লাকী রজব • আলো ছায়া : পর্ব- ২

আলো ছায়া : পর্ব- ২

13592390_1050201571702230_4654595231009143262_n

বাড়ির সামনে এসে দেখলাম, বাড়ির বাইরে
খোলায় বসে মাঝবয়সী একজন মহিলা খেসারি ঝাড়ছে। বড় ধরনের গেরস্থ বাড়ি। মহিলা আমার দৃষ্টিপাত করলে বললাম,
-চচীমা এক গ্লাস পানি খাওয়াবেন? খুব তৃঞ্চা পেয়েছে। মহিলাটি আমার দিকে একপলক তাকিয়ে বাড়ির দিকে ফিরে ডাক দিল,
-লিমা, একজগ পানি দিয়ে যাতো।
আমার দিকে ফিরে বলল,
-তোমার বাড়ি কোথায় বাবা?
-বাড়ি বাবা অনেক দূর।
-যাবা কোথায়?
-এইতো এদিকেই।
একটি মেয়ে একজগ পানি গ্লাস হাতে বাড়ি থেকে বের হয়ে আসলো। নয়নে চমক লাগার মত সে। আমার দিকে একপলক তাকিয়ে পানির জগটা মায়ের হাতে দিয়ে বাড়ির ভিতর চলে গেল। তৃঞ্চা নিবারণ করে উত্তর দিকে হাটতে লাগলাম। একজন লোক আমার আগে আগে হাটছে। আমি সেই দোকানদারের কাছে শুনেছিলাম সামনে একটি বাজার আছে। লোকটি হয়তবা সে বাজারে যাবে। আমারও আজকের গন্তব্য হয়তবা সেখানেই। লোকটি একবার পেছন ফিরে তাকিয়ে কিছুক্ষণ পরে দাঁড়ালো। আমি ততক্ষণে লোকটার নিকটে এসে পড়েছি। আমাকে জিজ্ঞাসা করল,
-তোমার বাড়ি কোথায় ও?
-বাড়ি অনেকদূর।
-অনেকদূর কোথায়?
-পাবনা।
-যাবা কেথায়?
-এদিকেই।
-কি জন্য এদিকে?
-একটা কাজ খুজতে।
-পাবনা থেকে এতদূর কাজ করতে আসছো। কি কাজ করতে পারবা তুমি?
-পারিতো অনেক কাজই করতে। আপনার বাড়ি কোথায়?
-আমার বাড়ি ঐ যে পেছনের ওটা।
-অ: যাবেন কোথায়?
-যেতে তো চাইছিলাম করিমগঞ্জের হাটে। একজন ড্রাইভারের দরকার, হাটে গিয়ে আলাপ করে দেখি পাওয়া যায় নাকি।
-কিসের ড্রাইভার ?
-হেরোর, জমি চাষ দেয়ার কলের লাঙ্গল। আগে একজন ছিল। ও বিদেশ চলে গেছে। তুমি কি পরবা হেরো চালাতে?
-নিলে তো পারতাম-ই।
-নেব না কেন, পারবা তো?
-পারবো।
-তো চল যাই আমার বাড়িতে। যদি পারো তো তেমারেই রাখবনে।
-চলেন।

সে লোকের বাড়িতে আসলাম।
-কি-গা শরিফের মা, শরিফের বাবা কোথায়? ,
-হপারের তেল আনতে গেছে।
-হেরোর খোপ দেখি তালা দেয়া। চাবিটা দেওতো।
তালা খুলে বলল,
-চালু করে বের করে আনোতো দেখি পারো নাকি।
-পারবো না কেন, আনতেছি।
-আচ্ছা, এই জায়গাটা ভাল করে চাষ দেও।
শরিফের মা বলল,
-চাচা মিয়া এ কেডা, ড্রাইভার রাখছেন নাকি?
-হ্যা।
চাষ দেয়া শেষ হলে বলল,
-আচ্ছা খুব ভালো হয়েছে, আর চষতে হবে না। এইবার তোমার নাম পরিচয় বলো আর কিসের জন্যই বা অতদূর থেকে এদিকে কজে আসছো?
নাম পরিচয় বললাম। তারপর বললাম,
-আসছি আমার বাবা গরীব মানুষ। বাড়ির দিকে কাজকর্ম করে পোষায় না, তাই এতদূর।
-আচ্ছা ঠিক আছে। তুমিই ড্রাইভার থাকো। আমার বাড়িতে থাকবে খাবে সারা বছর। তিন হাজার টাকা মাস মাইনে দেব। তেমার পোষাবে?
-আচ্ছা চাচা, ঠিক আছে থাকলাম।

পর্ব- ৩ 

Author:luckyrazob

One response to  “আলো ছায়া : পর্ব- ২”

Leave a Reply